যেভাবে নিবেন পুলিশ কনস্টেবল নিয়োগের প্রস্তুতি | EjobsBD

যেভাবে নিবেন পুলিশ কনস্টেবল নিয়োগের প্রস্তুতি

Posted on June 27, 2019 by  EjobsBD

প্রথমে এ কার্যক্রমের শারীরিক মাপ ও শারীরিক পরীক্ষার  নেওয়া হয়। শারীরিক পরীক্ষাতে উত্তীর্ণরাই কেবল লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ পাবেন। প্রতিযোগিতাপূর্ণ এ পরীক্ষায় পাশ করতে হলে প্রয়োজন নিয়মিত অধ্যবসায়। চলুন তাহলে জেনে নেওয়া যাক কিভাবে প্রস্তুতি নেওয়া যায়।

পুলিশ কনস্টবলে পরীক্ষা পদ্ধতি: সাধারণত কয়েকটি ধাপে ভর্তি পরীক্ষা হয়ে থাকে। তার মধ্যে থাকছে শারীরিক পরীক্ষা, লিখিত পরীক্ষা ও মৌখিক পরীক্ষা।

শারীরিক পরীক্ষা: শারীরিক পরীক্ষার জন্য নির্ধারিত তারিখ, সময় ও স্থানে দৌড়, রোপিং ও জাম্পিং ইত্যাদি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে।

লিখিত পরীক্ষা: শারীরিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পর ০১ ঘণ্টা ৩০ মিনিটের ৪০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে ( ন্যূনতম ৪৫  শতাংশ নম্বর প্রাপ্তদের উত্তীর্ণ বলে গণ্য করা হবে)।

মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষা: লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পর ২০ নম্বরের মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে।

লিখিত পরীক্ষার প্রস্তুতি: লিখিত পরীক্ষার জন্য বীজগণিত, পাটিগণিত, বাংলা থেকে ইংরেজিতে অনুবাদ, ইংরেজি থেকে বাংলায় অনুবাদ, বাংলা ব্যাকরণ, বাংলা রচনা, মুক্তিযুদ্ধ, বাংলাদেশ ও সাম্প্রতিক বিষয়ের ওপর গুরুত্ব দিন। বিশেষ করে ইংরেজি ও গণিতের ওপর জোর দিন।

মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষার প্রস্তুতি: মৌখিক পরীক্ষার ক্ষেত্রে সাধারণ জ্ঞানের ওপর গুরুত্ব দিন। সাধারণ জ্ঞানের জন্য  বাজার থেকে ভালো মানের যে কোন সাধারণ জ্ঞানের বই সংগ্রহ করুন ও পড়তে শুরু করুন। নিজ জেলা ও বিভাগ সম্পর্কে ধারণা রাখুন। পাশাপাশি চোখ রাখুন সম-সাময়িক বিষয়াবলীর ওপর। মৌখিক পরীক্ষা দিতে পরিচ্ছন্ন ও পরিপাটি পোষাকে আসুন।

লিখিত মনস্তাত্ত্বিক ও মৌখিক পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে মেধাক্রম অনুযায়ী প্রাথমিকভাবে নির্বাচিত করা হবে। আপনার একটি সুন্দর ভবিষৎ গড়তে একটু অধ্যবসায়তো করতেই হবে। তাই আসন্ন পরীক্ষার আগে, আজ থেকে শুরু করুন আপনার একাগ্রচিত্তে পড়াশুনা। এই কটা দিন নিয়মমতো পড়াশুনা করলে অবশ্যই সুফল পাওয়া সম্ভব। সবার জন্য শুভ কামনা।